নব্বই জুড়ে আমাদের লেখালেখি না থেমে সমস্তটা উড়ছিল। আজও তার কিছু পালক। মূলতঃ, নিলাদ্রি সংগ্রহ করেছে ও সামান্য কিছু সংযোজন করেছি আমি। অর্জুন নেই, তাই, নীলাব্জ ফিরে পড়া গদ্য ও কবিতার দুটো ভারই সানন্দে নিয়ে আমাকে ঋণী করেছে। দ্রুত সেরে উঠুক অর্জুন। এই শীত বসন্ত নিশ্চিত করুক, তবে অন্য বসন্ত। কুড়ি - কুসুম - পরাগ - কেশর - কিশলয়ের বৃত্ত পূর্ণায়নের বসন্ত। মহীরূহের বসন্ত। কোন স্থির, পূর্বনির্দিষ্ট, উদ্দেশ্য-প্রণোদিত, একরৈখিক ভাষা-ধর্ম-বর্ণের ভিত্তিতে নয়। বহুত্বের ভিত্তিতে, বহুত্বের নিরিখে। যেমন বৃক্ষ। যেমন বৃক্ষদেবতা। ভাল থাকুন।